পানির জন্য হাহাকার চলছে নগরীর মীর হাজিরবাগ ও দোলাইরপাড় এলাকায়। অনেক বছর ধরেই এ অঞ্চলে পানি সমস্যা। আগে মাঝে মাঝে পানির সমস্যা দেখা দিত।

রোজার পর থেকে নিত্য সমস্যায় পরিণত হয়েছে বিশুদ্ধ পানির সংকট। এলাকায় কয়েকটি বাসায় পানি পাওয়া গেলেও অধিকাংশ বাসাবাড়িতে ঠিকমতো পানি পাওয়া যাচ্ছে না। যতটুকু পাওয়া যায় তা খাবার ও রান্নার উপযুক্ত নয়।

জানা যায়, তীব্র পানি সংকটের কারণে পানি কিনে ব্যবহার করছেন এ অঞ্চলের মানুষ। এতে হিমশিম খাচ্ছে মধ্যবিত্ত পরিবারগুলো। মীর হাজিরবাগের বাসিন্দা আনোয়ার আহমেদ বলেন, দৈনন্দিন প্রয়োজনীয় পানিটুকুও যদি কিনতে হয়, তাহলে কীভাবে কুলিয়ে উঠব। আমাদের কষ্ট দেখার যেন কেউই নেই। আরেক বাসিন্দা নূর মোহাম্মাদ। তিনি বলেন, লাইনে ঠিকমতো পানি আসে না। তাই আমরা পানি পাই না। কখনও যদি পানি আসে তাহলে বাড়িওলারা ভাগ করে দেন। ভাগে যেটুকু পানি পাই, তাতে জরুরি কাজটুকুও সাড়া যায় না।

ওয়াসার লাইনে আসা পানি বাড়িওলারা ভাগ করে দিলেও খুব একটা কাজে লাগছে না। কারণ, বেশিরভাগ সময়ই প্রচণ্ড নোংরা ও আবর্জনায় পূর্ণ থাকে সেই পানি। পাইপের সমস্যার কারণে কিছু বাসায় ঘোলা পানি আসে। যে পানি খাবার কিংবা ধোয়া-মোছা কোনো কাজেই ব্যবহার করা যাচ্ছে না।

আগে ওয়াসা থেকে গাড়ি দিয়ে পানি সরবরাহ করা হলেও বেশ কয়েকদিন ধরে তাও বন্ধ রয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন স্থানীয় বাসিন্দরা। তারা বলেন, যখন পানি সমস্যা কম ছিল, তখন নিয়মিত গাড়ি দিয়ে পানি দেয়া হত। আর এখন পানি সমস্যাও তীব্র হয়েছে, গাড়িও বন্ধ হয়েছে।

মীর হাজিরবাগ ও জুরাইনের কোনো স্থানে গাড়ি দিয়ে পানি দেয়া হলেও তা পর্যাপ্ত নয় বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী। নাজমা খানম নামে স্থানীয় আরেক বাসিন্দা বলেন, সকাল ৯টায় পানির গাড়ি আসে। কিন্তু ভোর ৬টা থেকেই লাইন ধরতে হয়। একটু পরে এলে আর ওইদিন পানি পাওয়া যায় না। এত কষ্ট করে লাইনে দাঁড়িয়ে যেটুকু পানি পাওয়া যায়, তাও যথেষ্ট নয়।

জুরাইন খন্দকার রোডের বাসিন্দা আমির হোসেন বলেন, গাড়ি দিয়ে পানি সরবরাহ তো কোনো সমাধান নয়। লাইনের কী সমস্যা আছে, এটা খতিয়ে দেখা হোক। দোলাইরপাড়ের বাসিন্দা রাসেল রবিন বলেন, সমস্যা সমাধানের কোনো উদ্যোগ তো ওয়াসা থেকে নেয়া হচ্ছে না।

এ এলাকায় তো পানির সমস্যা নতুন নয়। বিভিন্ন সময়ই পত্রপত্রিকায়, টিভি চ্যানেলে আমাদের দুর্দশা তুলে ধরা হয়েছে। কিন্তু কোনো কার্যকর উদ্যোগ নেয়া হয়নি।

বিদ্যমান পানি সমস্যা নিয়ে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) ৫১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কাজী হাবিবুর রহমান হাবু  বলেন, অনেক সমস্যা থাকা সত্ত্বেও স্বাভাবিক জীবনযাপন ব্যাহত হয় না। কিন্তু পানির সমস্যা দেখা দিলে আর স্বাভাবিক জীবনযাপন সম্ভব নয়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here